জইশ ই মহম্মদের মতোই বিজেপিকেও নিষিদ্ধ করা হোক, দাবি ফিরহাদ হাকিমের

266
জইশ ই মহম্মদের মত ব্যানড করতে চান ফিরহাদ হাকিম/The News বাংলা
জইশ ই মহম্মদের মত ব্যানড করতে চান ফিরহাদ হাকিম/The News বাংলা

জইশ ই মহম্মদের মতোই বিজেপিকেও নিষিদ্ধ করা হোক, দাবি ফিরহাদ হাকিমের। বীরভূমে শতাব্দী রায়ের নির্বাচনী সভা থেকে বিজেপির বিরুদ্ধে শনিবার বিতর্কিত মন্তব্য করলেন কলকাতার মেয়র তথা নগর ও পুরোন্নয়ন মন্ত্রী ফিরহাদ ববি হাকিম। আর সেই নিয়েই সরগরম রাজ্য রাজনীতি। বিজেপি তৃণমূলের রাজনৈতিক তরজা শুরু।

আরও পড়ুনঃ বাংলা থেকে লোকসভা ভোটে প্রার্থী হচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

শনিবার বীরভূমের সাঁইথিয়ায় তৃণমূলের প্রচার সভা থেকে আগাগোড়াই বিজেপির বিরুদ্ধে আক্রমনাত্মক ছিলেন কলকাতার মেয়র। এদিন তিনি বলেন, যেভাবে সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপের সাথে যুক্ত থাকার জন্য জইশ ই মহম্মদ জঙ্গি গোষ্ঠীকে নিষিদ্ধ করা হয়েছে, সেভাবে বিজেপিকেও নিষিদ্ধ করা হোক।

আরও পড়ুনঃ মমতার সভা ছেড়ে চলে গেল মানুষ, মাঝপথে ভাষণ বন্ধ করে বসে পড়লেন মমতা

বিজেপিকে এক হাত নিয়ে এদিন মঞ্চে ফিরহাদ, সবাইকে সারা বছর একসাথে থাকার পরামর্শ দেন। তিনি বলেন, মাঝেমাঝে, সাম্প্রদায়িক শক্তি মাথা তুলতে চাইবে, কিন্তু তা প্রতিহত করতে সবাইকে সাবধান থাকতে হবে। বিজেপিকে সাম্প্রদায়িক বলেন তিনি।

আরও পড়ুনঃ মমতাকে বুঝতে আমারও ভুল হয়েছিল, মানুষের তো হবেই, বললেন মোদী

তিনি বলেন, মালেগাঁও বিষ্ফোরনের সাথে যুক্ত সাধ্বী প্রজ্ঞাকে মধ্যপ্রদেশের ভোপাল লোকসভা কেন্দ্র থেকে প্রার্থী করেছে বিজেপি। বিষ্ফোরনের অভিযোগে যুক্ত ব্যক্তিকে প্রার্থী করার জন্য জইশের মতো বিজেপিকেও কেনো নিষিদ্ধ করা হবে না, সেই প্রশ্ন রাখেন তিনি।

আরও পড়ুনঃ মমতার সভা আলো করে বসে দাগী সমাজবিরোধী, নির্বাচন কমিশনে গেল বিরোধীরা

উল্লেখ্য, ২০০৮ সালে মহারাষ্ট্রের মালেগাঁও বিষ্ফোরনের পরেই সাধ্বী প্রজ্ঞার বিরুদ্ধে এই ঘটনায় যুক্ত থাকার অভিযোগ ওঠে। তাকে চক্রান্ত করেই ফাঁসানো হয়েছে বলে সাধ্বী বারবার দাবি করেছেন, এমনকি তাকে দিয়ে জোর করেও স্বীকারোক্তি আদায়ের চেষ্টা হয়েছে বলে তিনি জানিয়েছেন।

যদিও এই সংক্রান্ত পুরো প্রক্রিয়াই এখনো কোর্টের বিচারাধীন অবস্থায় রয়েছে। সম্প্রতি বিষ্ফোরন মামলায় জামিন পেয়েছেন তিনি। এদিন তাকে প্রার্থী করার দায়েই বিজেপির বিরুদ্ধে সরব হল তৃণমূল। আর এই জন্যই পাক জঙ্গি গোষ্ঠী জইশ ই মহম্মদের মতোই বিজেপিকেও নিষিদ্ধ করার দাবী তুললেন তিনি। বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলিপ ঘোষ বলেছেন, “হারার ভয়ে মাথা খারাপ হয়ে গেছে মেয়রের”।

আরও পড়ুনঃ অর্জুন সিংহের হাত ধরে বিজেপিতে যোগ চার কাউন্সিলর সহ কয়েক হাজার তৃণমূল কর্মীর
অর্ণব উধাও রহস্যে আরও পড়ুনঃ নোডাল অফিসার স্বামীর উধাও হওয়া নিয়ে নির্বাচন কমিশনকে তোপ দাগলেন স্ত্রী অনিশা

আপনার মোবাইলে বা কম্পিউটারে The News বাংলা পড়তে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ।

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন