রাজ্যপালের কাছে তৃণমূল প্রতিনিধি দল, ‘আবদার’ শুনে হতবাক ধনকড়

72
রাজ্যপালের কাছে তৃণমূল প্রতিনিধি দল, 'আবদার' শুনে হতবাক ধনকড়
রাজ্যপালের কাছে তৃণমূল প্রতিনিধি দল, 'আবদার' শুনে হতবাক ধনকড়

রাজ্যপালের কাছে তৃণমূল প্রতিনিধি দল; আবদার শুনে হতবাক ধনকড়। শুভেন্দু অধিকারীকে গ্রেফতার করতে হবে; এটাই এখন দাবি তৃণমূলের। সারদা দুর্নীতিতে শুভেন্দুকে গ্রেফতারের দাবী নিয়ে; ব্রাত্য বসুর নেতৃতে রাজভবনে হাজির হলেন সায়নী ঘোষ, তাপস রায়, শশী পাঁজা ও কুণাল ঘোষ। বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারীকে গ্রেফতারের দাবিতে; সোমবার থেকেই তৎপর তৃণমূল। শুভেন্দু গ্রেফতারের দাবিতে সোমবার সিজিও কমপ্লেক্সের সামনে ধর্নায় বসেন; কুণাল ঘোষ, সায়নী ঘোষ, বাবুল সুপ্রিয়, তৃণাঙ্কুর ভট্টাচার্য-সহ অন্যরা তৃণমূল নেতা নেত্রীরা।

শুভেন্দু গ্রেফতারের দাবীতে শুধু আন্দোলনই নয়; তাকে গ্রেফতারের দাবি তুলেছে ঘাসফুল শিবির। এই ইস্যুতে মঙ্গলবার রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়ের দ্বারস্থ হল তৃণমূল কংগ্রেস প্রতিনিধি দল। শুক্রবার বিধাননগর কোর্টে হাজিরা দিয়ে সারদা-কর্তা সুদীপ্ত সেন সাংবাদিকদের কাছে বলেন; তার কাছ থেকে টাকা নিয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী। এমন কী তাকে ব্ল্যাকমেলও করা হত; বলে জানান সারদা কর্ণধার। এর আগেও, জেল থেকে লেখা চিঠিতেও; শুভেন্দু অধিকারীর বিরুদ্ধে টাকা নেওয়ার অভিযোগ করেছিলেন সুদীপ্ত সেন। শুক্রবার সারদা কর্তার এহেন মন্তব্যের পরই; শুভেন্দু অধিকারীকে গ্রেফতারের দাবীতে ময়দানে নেমে পরেছে তৃণমূল কংগ্রেস।

আরও পড়ুনঃ “প্রধানমন্ত্রী নয়, বাংলা আবাস যোজনাই থাকবে”, শুভেন্দুকে ‘ওপেন চ্যালেঞ্জ’ মমতার

সুদীপ্ত সেনের এই অভিযোগের পরেই, রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়ের সঙ্গে দেখা করার কর্মসূচী; নেওয়া হয় তৃণমূলের পক্ষ থেকে। শুধু রাজভবনেই নয়, শুভেন্দুকে গ্রেফতারের দাবীতে; কাঁথি হলদিয়ায় প্রতিবাদ মিছিল করে শাসক দল। সাংবাদিকের মুখমুখি তৃণমূল মুখপাত্র কুণাল ঘোষ জানান; “শুভেন্দু অধিকারী পুরোপুরি সারদাকাণ্ডে জড়িত; তাঁকে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব গ্রেফতার করতে হবে”।

আরও পড়ুনঃ প্রধানমন্ত্রী কিষান সম্মান নিধির টাকা পাচ্ছেন, ৩৩০০০ ‘মৃত’ কৃষক ও ৫১০০০ ‘ভুয়ো’ কৃষক

ইতিমধ্যেই শুভেন্দু অধিকারীর ওপর; চাপ বাড়াতে পথে নেমেছে তৃণমূল। সিজিও কমপ্লেক্সের বাইরে থেকে জেলায় জেলায়, এমনকি শুভেন্দুর খাসতালুক বলে পরিচিত কাঁথিতেও; বিরোধী দলনেতাকে গ্রেফতারের দাবিতে অবস্থান-বিক্ষোভ করছে তারা। কোচবিহার স্টেশন মোড়ে শুভেন্দু অধিকারীকে গো ব্যাক স্লোগান দেয়; তৃণমূল কর্মীরা।

যদিও এই বিষয়ে বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর দাবী; ‘সবটাই তাঁর বিরুদ্ধে রাজনৈতিক ষড়যন্ত্র। তৃণমূল যাই করুক না কেন; তাঁর বিরুদ্ধে কোন কিছুই প্রমান করতে পারবে না’। তবে এই ইস্যুতে সরগরম; রাজ্যের রাজনৈতিক মহল।

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন