ইয়েতিকে জন্তু বলায় ভারতীয় সেনার উপর ক্ষুব্ধ বিজেপি নেতা

365
ইয়েতিকে জন্তু বলায় ভারতীয় সেনার উপর ক্ষুব্ধ বিজেপি নেতা/The News বাংলা
ইয়েতিকে জন্তু বলায় ভারতীয় সেনার উপর ক্ষুব্ধ বিজেপি নেতা/The News বাংলা

ইয়েতির পায়ের ছাপ দেখার দাবি নিয়ে ভারতীয় সেনার টুইটার ঘিরে দেশ জুড়ে তর্ক বিতর্ক চলছে। সত্যিই কি ওগুলো ইয়েতির পায়ের ছাপ, নাকি অন্য কিছুর ছাপ এই প্রশ্ন উঠছে। আর এসবের মধ্যেই ইয়েতি নিয়ে নতুন বিতর্কে জড়ালেন বিজেপি নেতা তরুন বিজয়।

ভারতীয় সেনার টুইটার পোস্টে বিজেপির এই নেতার মন্তব্যকে নিয়ে সারা দেশে তৈরি হয় অন্য বিতর্ক। বয়ে যায় বিদ্রুপের ঝড়। ভারতীয় সেনার পোস্টে বিজেপির এই নেতা লেখেন ইয়েতিকে ‘জন্তু’ বলে উল্লেখ করাটা মোটেই উচিত হয়নি ভারতীয় সেনার।

আরও পড়ুনঃ পায়ের ছাপ দেখিয়ে ভারতীয় সেনার দাবি, ইয়েতির অস্তিত্ব আজও আছে হিমালয়ে

মঙ্গলবার ভারতীয় সেনাবাহিনী নিজেদের টুইটার পেজে লিখেছে, “এই প্রথম ভারতীয় সেনার একটি পর্বতারোহী অভিযাত্রী দল ইয়েতির পায়ের ছাপ দেখল। গত ৯ এপ্রিল ওই বিশাল পায়ের ছাপ আমরা দেখেছি”। এই ন্যাশনাল পার্কে আগেও ইয়েতির অস্তিত্বের কথা শোনা গিয়েছে।

সেনা বলছে, নেপালে মাকালু বেস ক্যাম্পের কাছে দেখা গিয়েছে ইয়েতির পায়ের ছাপ। গত ৯ এপ্রিল ভারতীয় সেনার একটি পর্বতারোহী অভিযাত্রীদল প্রথমে দেখতে পায় সেই পায়ের ছাপ। ছবি তুলে তা পোস্টও করা হয়েছে ট্যুইটারে।

আরও পড়ুনঃ ভোটের মধ্যেই চরম সমস্যায় রাহুল, ভারতীয় নাগরিক প্রমাণ দিতে হবে দু সপ্তাহের মধ্যে

ভারতীয় সেনা টুইটারে লেখেন পর্বত অভিযাত্রী দল রহস্যময় ‘প্রাণী’র পায়ের ছাপ দেখতে পান। সেটিকে ইয়েতির বলেই মনে করা হচ্ছে সেনার তরফ থেকে। যার মাপ ৩২x১৫ ইঞ্চি। মাকালু বেস ক্যাম্পের কাছে ৯ এপ্রিল এই ছাপ তাঁরা দেখতে পেয়েছেন।

সেনার এই টুইটারেই বিজেপি নেতা তরুন বিজয় নিজের মতামত জানান। তিনি প্রথমে ভারতীয় সেনাকে অভিনন্দন জানান যে ইয়েতির পায়ের ছাপ দেখাতে পাওয়া নিয়ে। তিনি সেনাবাহিনীকে স্যালুটও জানিয়েছেন। কিন্তু তারপরেই তিনি সেনাবাহিনীকে কাঠগড়ায় দাঁড় করান।

আরও পড়ুনঃ ভোটের মধ্যেই ফের লজ্জায় রাহুল, হাতজোড় করে ক্ষমা চাইতে হল আদালতে

তিনি সেনার উদ্দেশে লেখেন আপনারা ভারতীয়, আপনারা ইয়েতিকে ‘জন্তু’ বলে সম্বোধন করতে পারেন না। আপনাদের উচিত ইয়েতিদের প্রতি সম্মান দেখান। জন্তু বললে ইয়েতির অপমান করা হয়। আপনাদের উচিত ইয়েতিকে জন্তুর বদলে স্নো-ম্যান বলে সম্বোধন করা।

টুইটারে বিজেপি নেতার এই মন্তব্যের পরেই শুরু হয়ে যায় বিভিন্ন মতবিরোধ। কেউ কেউ তাকে নিয়ে ব্যাঙ্গ বিদ্রুপ শুরু করেন। কেউ আবার চরম নিন্দে করেন বিজেপি নেতার। তাদের বক্তব্য বিজেপি নেতা ভারতীয় সেনাকে অপমান করেছেন।

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন