ফিরদৌসের পর গাজী নূরকে বাংলাদেশ ফেরত পাঠাল ভারত সরকার

368
ফিরদৌসের পর গাজী নূরকে বাংলাদেশ ফেরত পাঠাল ভারত সরকার/The News বাংলা
ফিরদৌসের পর গাজী নূরকে বাংলাদেশ ফেরত পাঠাল ভারত সরকার/The News বাংলা

ফিরদৌসের পর এবার বিপাকে পড়লেন বাংলাদেশের অভিনেতা গাজী নূর। গাজী নূর বাংলা টেলিভিশনের জনপ্রিয় ধারাবাহিক রানী রাসমনিতে রাজা রাজচন্দ্রের চরিত্রে অভিনয় করছিলেন। তাঁর বিরুদ্ধেও তৃণমূলের হয়ে প্রচারে অংশ নেবার অভিযোগ নিয়ে নির্বাচন কমিশনে গিয়েছিল বিজেপি। আর আজ নির্বাচন কমিশনের নির্দেশে তিনিও ভারতের কালো তালিকায় চলে গেলেন। তাঁকেও ভারত ছাড়ার নির্দেশ দিল সরকার।

আরও পড়ুনঃ রিভালবার নিয়ে বুথে ঢুকে ভোট দেওয়ায় সঞ্জয় দত্তকে শোকজ করল নির্বাচন কমিশন

গাজী নূরের বিরুদ্ধে অভিযোগ, গত ১২ই এপ্রিল কামারহাটিতে তৃণমূল নেতা মদন মিত্রের আমন্ত্রনে দমদম লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী সৌগত রায়ের হয়ে প্রচারে অংশ নিয়েছিলেন। নির্বাচনী প্রচারের ভিডিওটি মদন মিত্র সামাজিক মাধ্যমে পোস্ট করেছিলেন। দু ঘন্টার সেই ভিডিওই গাজীর বিরুদ্ধ বিজেপির হাতিয়ার ছিল।

আরও পড়ুনঃ পয়সা দিয়ে আনা হয় সেলিব্রিটিদের, বিদেশি অভিনেতা প্রসঙ্গে বেফাঁস কল্যাণ

এই অভিযোগেই বুধবার নির্বাচন কমিশনের দ্বারস্থ হয়েছিল বিজেপি। তার বিরুদ্ধে ভিসা রেগুলেশন আইন না মানার অভিযোগ দায়ের করা হয়েছিল নির্বাচন কমিশনের কাছে। বিজেপির দাবি, টেম্পোরারি বিজনেস ভিসা নিয়ে গাজী নূর ভারতে এসেছেন। কিন্তু রাজনৈতিক দলের হয়ে ভোট প্রচারে অংশ নিয়ে তিনি ভিসার শর্ত লঙ্ঘন করেছেন। সম্ভবত এবার তার বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নিতে চলেছে নির্বাচন কমিশন।

আরও পড়ুনঃ চোপড়া বাস স্টান্ডে বাইক বাহিনীর হাতে আক্রান্ত ভোটাররা

তদন্তে দেখা গেছে ভিসার মেয়াদ পেরিয়ে যাবার পরেও গাজী নূর ভারতে বাস করছিলেন। দেশ ছেড়ে নির্দেশ দেবার সাথে ভিসার মেয়াদ পরেও কেন তিনি ভারতে ছিলেন সে ব্যাপারেও প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা নেবে ভারত সরকার।

আরও পড়ুনঃ ইসলামপুরে ছাপ্পা ভোট রুখলেন মহম্মদ সেলিম, রাগে গাড়িতে ভাংচুর দুষ্কৃতীদের

তৃণমূলের হয়ে ভোট প্রচারে অংশ নিয়ে রবিবারই বিতর্ক তৈরি করেছিলেন বাংলাদেশী অভিনেতা ফিরদৌস। বিজেপির তরফে অভিযোগ পেয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক তার ভিসা বাতিল করে। তাঁকে কালো তালিকাভুক্ত করা হয়। কলকাতার বাংলাদেশ হাইকমিশনও ফিরদৌসকে দেশে ফেরার পরামর্শ দেয়। বিপদ বুঝে মঙ্গলবার গভীর রাতেই বাংলাদেশে ফেরেন তিনি। আজ রাতের মধ্যে গাজীকেও ভারত ছাড়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ পুরুলিয়ায় আবার বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার

পরপর দুই বাংলাদেশী অভিনেতার বিরুদ্ধে যেভাবে বিজেপি অভিযোগ এনেছে, তাতে বিজেপির বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক রাজনীতি করার অভিযোগ তুলেছে তৃণমূল। উল্টে তৃণমূলের বিরুদ্ধেই তোষনের অভিযোগ তুলে সাম্প্রদায়িক রাজনীতি করার অভিযোগ করছে বিজেপি। বিজেপির দাবি, একটি সম্প্রদায়কে খুশি করতেই বাংলাদেশী অভিনেতাদের ওপর নির্ভরশীলতা বাড়িয়েছে তৃণমূল।

আরও পড়ুনঃ তৃণমূলের হয়ে প্রচার করে ভারতের কালো তালিকায় বাংলাদেশী অভিনেতা ফিরদৌস

আপনার মোবাইলে বা কম্পিউটারে The News বাংলা পড়তে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ।

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন