EXCLUSIVE: নতুন বছরে সুখবর, রাজ্য সরকারি কর্মীরা পাচ্ছেন বকেয়া ডিএ

444

The News বাংলা, কলকাতাঃ নতুন বছরেই সুখবর। রাজ্য সরকারি কর্মীরা পাচ্ছেন বকেয়া বোনাস। এই মাসেই মিটিয়ে দেওয়া হবে বকেয়া ডিএ। নবান্ন সূত্রে এই খবর জানা গেছে। ৪৮ শতাংশ ডিএ বাকি বাংলার রাজ্য সরকারি কর্মীরা। বীরভূমের ইলামবাজারের সভায় এই ঘোষণা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও।

আরও পড়ুনঃ বাংলায় আবার নক্ষত্র পতন, চলে গেলেন বিখ্যাত সাহিত্যিক

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন, ২০১৯ সালের মধ্যেই মিটিয়ে দেওয়া হবে বকেয়া ডিএ৷ কেন্দ্রের সঙ্গে একই হারে ডিএ দেওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে রাজ্য সরকারের৷ তবে জানুয়ারী থেকে ঠিক কত শতাংশ ডিএ দেবে রাজ্য সরকার তা জানা যায় নি। কেন্দ্রের সঙ্গে এখন ফারাক ৪৮ শতাংশ।

আরও পড়ুন: বাঘ খুঁজতে ব্যর্থ হাতি, উত্তরের জঙ্গল সাফারিতে উড়বে ড্রোন

তবে নবান্ন সূত্রে খবর, বাকি থাকা ৪৮ শতাংশ ডিএ এর মধ্যে ২৫ শতাংশ ডিএ এই মাসেই মিটিয়ে দেওয়া হবে। বাকি থাকবে আর ২৩ শতাংশ ডিএ। সেটাও লোকসভা ভোটের আগে মিটিয়ে দেবার চেষ্টা করা হবে বলে মনে করা হচ্ছে। আপাতত মুল বেতনের ১২৫ শতাংশ ডিএ হিসাবে পাবেন রাজ্য সরকারি কর্মচারীরা।

আরও পড়ুন: ‘রাম’কে ছেড়ে আসা লক্ষণকে ‘হাতে’ নিয়ে বাংলায় তুলকালাম

‘রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের বকেয়া ডিএ মেটাবে রাজ্য সরকার। ৫০ শতাংশ ডিএ দেবে রাজ্য সরকার’। এজি কিশোর দত্ত গত সেপ্টেম্বরেই একথা জানান।

আরও পড়ুন: কংগ্রেস ছেড়ে মমতার ‘মহানায়িকা’ এবার মোদীর বক্স অফিসে

কিন্তু ‘কেন পুরো ডিএ দিতে পারবে না রাজ্য সরকার তা হলফনামা দিয়ে জানাতে হবে’। ডিএ মামলার শুনানিতে গত বছরেই এমনই নির্দেশ দিয়েছিল কলকাতা হাইকোর্টের ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি দেবাশিস করগুপ্তের ডিভিশন বেঞ্চ। এর আগে গত ২৮ আগস্ট রাজ্য সরকার আদালতে হলফনামা দিয়ে জানিয়েছিল, ‘মহার্ঘ ভাতা রাজ্য সরকারি কর্মীদের কোনো বৈধ অধিকার নয়’।

আরও পড়ুন: পরিচালক মৃণাল সেনের ফিল্ম পরিচালনার কিছু ‘মণি মুক্ত’

এই ডিএ বাড়াবার আন্দোলন করতে গিয়েই অনেকেই রাজ্য সরকারের রোষানলে পরে বদলি হয়েছেন দূর দুরান্তে। গত বছরেই নবান্নে ডিএ বাড়াবার আন্দোলনে যোগ দিয়ে বাড়ির কাছ থেকে অনেক দূরে দূরে বদলি হয়েছেন রাজ্য সরকারি কর্মীরা।

তবে রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের সংগঠন এর নেতাদের দাবি, ‘জামাই ষষ্ঠীর দিনই এই ঘোষণা হয়েছিল। এটা নতুন কিছু নয়’। বারবার একই ঘোষণা করে ভোটের আগে ফায়দা লোটার চেষ্টা ছাড়া আর কিছুই নয়, পরিষ্কার জানিয়ে দিয়েছে বিরোধী রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের সংগঠনগুলি।

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন