২৩ মে নয়, ভোটের ফল পিছতে পারে আরও ৬ দিন জানাল নির্বাচন কমিশন

530
২৩ মে নয়, ভোটের ফল পিছতে পারে আরও ৬ দিন জানাল নির্বাচন কমিশন/The News বাংলা
২৩ মে নয়, ভোটের ফল পিছতে পারে আরও ৬ দিন জানাল নির্বাচন কমিশন/The News বাংলা

২৩ মে নয়, লোকসভা ভোট গণনা পিছতে পারে আরও ৬ দিন জানাল নির্বাচন কমিশন। নির্বাচন কমিশন একথা জানিয়েছে সুপ্রিম কোর্টে। বিরোধীদের কথা মেনে ৫০ শতাংশ ভিভিপ্যাট গণনা বাড়াতে হলে ভোটের গণনা ৬ দিন পিছতে পারে বলেই দেশের শীর্ষ আদালতে জানাল নির্বাচন কমিশন।

আরও পড়ুনঃ দাঙ্গায় মদত দেওয়ার অভিযোগে হার্দিকের নির্বাচনে লড়তে নিষেধাজ্ঞা গুজরাট হাইকোর্টের

বিরোধীরা ৫০ শতাংশের বেশি ভিভিপ্যাট বা VVPAT (Voter Verified Paper Audit Trail) গণনা বাড়াতে হলে ভোটের ফল ২৩ মের বদলে পিছিয়ে যেতে পারে আরও ৬ দিন। এই তথ্য দেশের শীর্ষ আদালতে জানিয়ে দিল নির্বাচন কমিশন। আর এর জেরেই জল্পনা বেড়েছে, তাহলে কি ২৩ মে ভোটের ফল জানতে পারবে না ভারতবাসী?

আরও পড়ুনঃ ২৩ আসনেই জয় নিশ্চিত, বাংলা দখলের লক্ষ্যে অবিচল অমিত শাহ

সুপ্রিম কোর্টে ৫০ পাতার এফিডেভিট পেশ করে এই তথ্য জানিয়ে দিয়েছে কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন। কমিশনের হিসাব মত, ইভিএম বা Electronic Voting Machine(EVM) ও ভিভিপ্যাট বা Voter Verified Paper Audit Trail(VVPAT) একসঙ্গে গণনা করলে তাতে ভোট গণনা ৯৯.৯৯ শতাংশ নির্ভুল হয়। আর তাই প্রত্যেক আসনেই অন্তত ৫০ শতাংশ আসনে ভিভিপ্যাট গণনার দাবি তুলেছে বিরোধীরা।

আরও পড়ুনঃ মদ বিক্রিতে ১০ হাজার কোটি টাকার সর্বকালিন রেকর্ড গড়ল মা মাটি মানুষের সরকার

এই নিয়ে সুপ্রিম কোর্টের দারস্থ হয়েছে বিরোধীরা। সেই নিয়েই নির্বাচন কমিশন এর কাছে লিখিত রিপোর্ট চায় দেশের শীর্ষ আদালত। এই ৫০ পাতার এফিডেভিট কোর্টে পেশ করে ভোট গণনা ও ফল প্রকাশ পিছিয়ে যাবার এই তথ্য জানিয়ে দিয়েছে কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন। বিরোধীদের আবেদনের পরই ভিভিপ্যাট গণনা বাড়ানোর ব্যাপারে একটা পর্যবেক্ষণ দেয় সুপ্রিম কোর্ট।

আরও পড়ুনঃ সেনার খাবারের মান নিয়ে প্রশ্ন তোলা তেজ বাহাদুর বারাণসীতে প্রার্থী মোদীর বিরুদ্ধে

বিজেপি বিরোধী ২১ টি দল ৫০ শতাংশ ভিভিপ্যাট গণনা বাড়াতে সুপ্রিম কোর্টের শরণাপন্ন হয়েছে। এর পরেই নির্বাচন কমিশন এর কাছে এই নিয়ে রিপোর্ট চায় আদালত। তারই উত্তরে ৬ দিন ভোট গণনা পিছিয়ে যাবার কথা বলে নির্বাচন কমিশন। ২৩ মে ফল ঘোষণার দিন। সুপ্রিম কোর্ট বিরোধীদের দাবি মানলে ভোটের ফল ঘোষণা ৬ দিন পিছিয়ে যাবে।

আরও পড়ুনঃ মোদীর মিশন শক্তির ঘোষণায় নির্বাচনী আচরনবিধি লঙ্ঘন হয়নি, জানিয়ে দিল কমিশন

এখন সুপ্রিম কোর্ট কি সিদ্ধান্ত নেয় সেটাই এখন দেখার। দেশের শীর্ষ আদালত ভিভিপ্যাট বা Voter Verified Paper Audit Trail(VVPAT) নিয়ে যদি বিরোধীদের কথা মেনে নেয় তাহলে নতুন করে ভোটের গণনা ও ফলাফলের দিন ঘোষণা করতে হবে। সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশের দিকে তাকিয়ে শাসক বিরোধী সব দল। দেশের শীর্ষ আদালতের দিকে তাকিয়ে কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশনও।

আরও পড়ুনঃ পাক জঙ্গিদের সাহায্যকারি দেশের বিশ্বাসঘাতকদের খুঁজতে ৮ সদ্যসের গোয়েন্দা দল

আপনার মোবাইলে বা কম্পিউটারে The News বাংলা পড়তে লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ।

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন