সমুদ্রে মাছ ধরতে গিয়ে কেন এত এত টন প্লাস্টিক পেল কেরলের এক জেলে

9809
মাত্র দুই মাসে সমুদ্র থেকে প্রায় ৩.৫ টন প্লাস্টিক অপসারণ করা হল/The News বাংলা
মাত্র দুই মাসে সমুদ্র থেকে প্রায় ৩.৫ টন প্লাস্টিক অপসারণ করা হল/The News বাংলা

মাত্র দুই মাসেই; প্রিয়াশ কেভি সমুদ্র থেকে প্রায় ৩.৫ টন প্লাস্টিক অপসারণ করতে পেরেছেন। কেরলের কোজিকোড জেলার; একজন ৩০ বছর বয়সী জেলে প্রিয়াশ কেভি। ১৪ বছর বয়স থেকে তিনি মাছ ধরতে সাগরে যান। কিন্তু গত কয়েক বছরে; তার মাছ ধরার জালে মাছের চেয়ে বেশি; প্লাস্টিকের বর্জ্য ধরা পড়েছে। পরিস্থিতি খারাপ হয়ে যাওয়ায়; তিনি সমুদ্র থেকে প্লাস্টিকের যতটুকু সম্ভব; তা অপসারণের জন্য; ব্যক্তিগত মিশন শুরু করার সিদ্ধান্ত নেন।

কোজিকোডে ভাদাকারার একটি উপকূলীয় গ্রাম; আজিয়াউরের প্রিয়াশ একটি নিচু পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। যদিও তিনি একজন উজ্জ্বল ছাত্র ছিলেন; তবে অষ্টম শ্রেণীর পর আর শিক্ষা এগিয়ে নিয়ে যেতে পা্রেন নি। কিন্তু তাঁর ইচ্ছে ছিল দশম শ্রেণী অবধি পড়া।

দুই মাস আগে; প্রিয়াশ যখন সমুদ্রে গিয়েছিলেন তখন থেকেই প্লাস্টিক সংগ্রহ করতে শুরু করেন। “বেশ অনেকদিন ধরেই; আমি সাগর পর্যবেক্ষণ করছিলাম এবং প্লাস্টিকের উপস্থিতির বৃদ্ধি এবং মাছের সংখ্যা হ্রাসের কথা ভাবছিলাম। সমুদ্রে যেখানে প্লাস্টিক রয়েছে; সেখানে কোন মাছ নেই। এভাবে চললে আমাদের ব্যবহৃত জলেও প্লাস্টিক ভরাট হতে থাকবে। যদি প্লাস্টিকের পরিমাণ কম করা যায়; তাহলে সেখানে আরো মাছের পরিমাণ বাড়বে” প্রিয়াশ জানায়।

এই উদ্যোগটি শুরু করার আগে; প্রিয়াশ স্থানীয় পঞ্চায়েত সচীবের সাথে দেখা করেন এবং সমুদ্রের পরিস্থিতির কথা তুলে ধরেন। তিনি বলেছেন “আমি যখন তাদের প্লাস্টিকের দ্বারা সাগর দূষিত হওয়ার কথা বলি; তখন লোকেরা সাধারণত আমাকে বিশ্বাস করে নি। তাই আমি গ্রামীণ পঞ্চায়েত অফিসে গিয়েছিলাম; যেখানে আমি মাছ ধরার জালে আটকে থাকা প্লাস্টিকের ছবিগুলো দেখিয়েছিলাম। তারা প্রথমে খুব হতাশ হয়েছিল এবং পরে সাহায্য করার জন্য রাজি হয়েছিল”।

প্রিয়াশ বাবুর কাজটি কেবল প্লাস্টিক সংগ্রহের সাথে শেষ হয় না। তিনি প্লাস্টিকের বর্জ্য পুনঃব্যবহার করাকে নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, বর্জ্যটি পঞ্চায়েতের প্লাস্টিক শৃঙ্খলাকরণ ইউনিটে নিয়ে যাওয়া হবে; সেখানে প্লাস্টিককে পুনর্ব্যবহারযোগ্য করে তোলা হবে।

সমুদ্র থেকে বর্জ্য অপসারণের এই পবিত্র অভিযান ১০ জুন থেকে অস্থায়ীভাবে স্থগিত করা হয়েছে। প্লাস্টিক দূষণের প্রভাব সম্পর্কে; আরও অধ্যয়ন করতে স্কুল গুলিকে দায়িত্ব নেওয়ার কথা বলেছেন তিনি। শিশুদের প্লাস্টিক দূষণের প্রভাব শেখানোর জন্য এটি গুরুত্বপূর্ণ।

Comments

comments

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন